মাইক্রোসফটের পরবর্তী কার্যক্রম

কয়েক দিন আগেই নগদ ২ হাজার ৬০০ কোটি ডলার দিয়ে পেশাদারদের নেটওয়ার্কিং ওয়েবসাইট হিসেবে খ্যাত লিঙ্কডইনকে কেনার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বের বৃহত্তম সফটওয়্যার নির্মাতা মাইক্রোসফট। এবার অর্থমূল্য ঘোষণা না দিয়ে চ্যাটবট ও মেসেজিং অ্যাপ উদ্যোক্তা ওয়্যান্ড ল্যাবসকে কেনার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বের বৃহত্তম সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি। প্রশ্ন উঠেছে, কী করতে যাচ্ছে মাইক্রোসফট?
বিশ্লেষকেরা বলছেন, প্রতিষ্ঠানগুলোকে কেনার অর্থ মাইক্রোসফট ‘কৃত্রিম বুদ্ধিমান আলাপচারী’ সেবা তৈরির ঐকান্তিক প্রচেষ্টার মধ্যে রয়েছে। এ ফিচারটি মাইক্রোসফটের অফিস ৩৬৫, করটানা, বিংয়ের মতো সেবায় যুক্ত করা যাবে। তবে এ ক্ষেত্রে কী মাইক্রোসফট প্রতিদ্বন্দ্বী অ্যাপল-গুগল-ফেসবুকের চেয়ে দেরি করে ফেলল না?

মাইক্রোসফটের ইনফরমেশন প্ল্যাটফর্ম গ্রুপের করপোরেট ভাইস প্রেসিডেন্ট ডেভিড কু বলেন, কনভারসেশন বা আলাপচারিতাকে একটি প্ল্যাটফর্ম হিসেবে দাঁড় করাতে ওয়্যান্ড ল্যাবসকে অধিগ্রহণ করায় আমাদের লক্ষ্য ও পরিকল্পনা বেগবান হবে।

কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার সঙ্গে আসল আলাপ
একটি স্মার্ট সফটওয়্যার তৈরি করতে চায় মাইক্রোসফট। সার্চ ইঞ্জিন ও ভার্চ্যুয়াল সহকারী সফটওয়্যারগুলো মূলত মানুষের খোঁজ ও কণ্ঠস্বরের মাধ্যমে নির্দেশনাগুলোর ওপর নির্ভর করে তথ্য হাজির করে। মানুষের সঙ্গে যন্ত্রের বা যন্ত্রের সঙ্গে মানুষের কথা বলার সুযোগ তৈরি করে দেওয়াটা চ্যালেঞ্জের। যন্ত্রকে স্বাভাবিক ও স্মার্ট আলাপচারিতার উপযোগী করে তুলতেই ওয়্যান্ড ল্যাবস কাজ করে। ২০১৩ সালে ওয়্যান্ড ল্যাবস যাত্রা শুরু করে।
উল্লেখ্য, ভার্চ্যুয়াল সহকারী তৈরিতে ফেসবুক ও গুগল নিজস্ব প্রকল্প নিয়ে কাজ করছে।

মাইক্রোসফটের পরিকল্পনা
নিউজ ফিড নিয়ে বড় ধরনের পরিকল্পনা করছে মাইক্রোসফট। ভবিষ্যতে মাইক্রোসফটের ডেস্কটপ ও ক্লাউড-সংশ্লিষ্ট অ্যাপে নিউজ ফিড-সুবিধা যুক্ত হতে পারে।
মাইক্রোসফটের পক্ষ থেকে নাদেলা বলেন, ‘আমাদের বর্তমানে মাইক্রোসফট গ্রাফ আছে, মানুষ ও তার সম্পর্কের বিষয়টি হাতে আছে, মানুষের ক্যালেন্ডার ও প্রকল্প আমাদের হাতে আছে। লিঙ্কডইনের আছে পেশাদারদের নিজস্ব নেটওয়ার্ক। মাইক্রোসফট আর লিঙ্কডইনের দুটি গ্রাফকে যদি একসঙ্গে করা যায়, তবে রোমাঞ্চকর এক জাদু শুরু হবে। পেশাদার ব্যক্তিদের জীবন সত্যি সত্যি বদলে দিতে পারব।’
নাদেলা বলেছেন, নিউজফিড নিয়ে এমন একটি ধারণা আছে, যাতে ব্যবহারকারীর ক্যালেন্ডার ব্যবহারে সুবিধা হবে। এ ছাড়া মাইক্রোসফটের বিং সার্চ ইঞ্জিন লিঙ্কডইনের সার্চ সুবিধা বাড়াবে। লিঙ্কডইনের সঙ্গে মাইক্রোসফটের ভার্চ্যুয়াল সহকারী করটানাকে যুক্ত করা হবে। এভাবে পুরো মাইক্রোসফটে সামাজিক যোগাযোগের সুতায় বাঁধা হবে।
প্রযুক্তি পরামর্শক প্রতিষ্ঠান ইনভেস্টরপ্লেসের বিশ্লেষক জেমস ব্লুমলির মতে, মাইক্রোসফটের পণ্য ও সেবা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কাছে বিক্রির জন্য লিঙ্কডইন মূল্যবান একটি টুল হিসেবে ব্যবহৃত হবে। তথ্যসূত্র: টেকটাইমস, আইবিটাইমস।

No Comments

    Leave a reply